উপজেলা পরিষদ নির্বাচন বর্জনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিএনপি

উপজেলা পরিষদ নির্বাচন বর্জনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিএনপি
Rate this post

ঘটনাচক্রে প্রথমে উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসে জামায়াতে ইসলামী। ঈদের পরপরই নিজেদের পরিবর্তিত সিদ্ধান্তের কথা মাঠ পর্যায়ের নেতাদের জানায় দলটি। এর আগে উপজেলা নির্বাচনে প্রথম ধাপে অংশ নিতে জামায়াতের অন্তত ২২ নেতা মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। দলের নেতারা বলছেন, তারা প্রার্থিতা প্রত্যাহার করবেন।

বিএনপির নীতিনির্ধারণী পর্যায়ের নেতারা জানিয়েছেন, দলে যারা প্রার্থী হয়েছেন, তাদের প্রার্থিতা প্রত্যাহারের নির্দেশনা পাঠানো হবে।

উপজেলা নির্বাচন বয়কটের পক্ষে বিএনপির যুক্তি হলো, আওয়ামী লীগ সরকারের অধীনে স্থানীয় সরকার নির্বাচনও হবে নিয়ন্ত্রিত। তারা এই নির্বাচনে যোগ দিলে আওয়ামী লীগ রাজনৈতিকভাবে লাভবান হবে। দলটি বিষয়টি বিবেচনায় নিয়েছে।

আজ মঙ্গলবার প্রথম আলোর সঙ্গে আলাপকালে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর রায় বলেন, আওয়ামী লীগ সরকারের অধীনে কোনো নির্বাচনে না যাওয়ার বিষয়টি তাদের দলের দীর্ঘদিনের সিদ্ধান্ত। তাদের এই সিদ্ধান্ত মেনে চলার সিদ্ধান্ত আছে।

উপজেলা নির্বাচনে প্রথম ধাপে ৪৫ জন বিএনপি নেতা মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন বলে মনে করছে না বিএনপি। গয়েশ্বর রায় বলেন, উপজেলা নির্বাচন নিয়ে তৃণমূল নেতাকর্মীদের মধ্যে তেমন আগ্রহ নেই বলে তারা লক্ষ্য করেছেন।

source

Comments

No comments yet. Why don’t you start the discussion?

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *